আবারও শ্রেষ্ঠ সার্কেল অফিসার হলেন এডি.এসপি গাজিউর

প্রধান খবর বগুড়ার সংবাদ

এস,আই শাওন:

কর্মক্ষেত্রে সর্বদা সফলতার স্বাক্ষর রেখে চলেছেন শেরপুর সার্কেল বগুড়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার গাজিউর রহমান। জেলা পুলিশের মাসিক কল্যাণ ও অপরাধ সভায় নভেম্বর মাসে চৌকস কার্য সম্পাদনে তাকে সম্মাননা প্রদান করা হয় । বগুড়ায় পুলিশ লাইন্স স্কুল এন্ড কলেজ অডিটোরিয়ামে মাসিক কল্যাণ এবং অপরাধ সভা আবারও শ্রেষ্ঠ সার্কেল নির্বাচিত হয়েছেন শেরপুর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার গাজিউর রহমান।

মঙ্গলবার (৮ ডিসেম্বর) জেলা পুলিশের মাসিক কল্যাণ সভায় সভাপতিত্ব করেন বগুড়া জেলা পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞা। এ সময় চৌকস কার্য সম্পাদনকারী’ ক্যাটাগরীতে শ্রেষ্ঠ সার্কেল অফিসার হিসেবে শেরপুর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার গাজিউর রহমানকে পুরস্কৃত করা হয়। কলেজ অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত ওই সভার সভাপতি পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞা তার হাতে সম্মাননা ক্রেস্ট তুলে দেন। এ নিয়ে গত ২৮ মাসে ১৩বার জেলা পুলিশের শ্রেষ্ঠ সার্কেল অফিসার নির্বাচিত হলেন তিনি।

এছাড়াও তিনি চলতি বছরে অর্জন করে নিয়েছেন আইজিপি পদক। তিনি তার পুলিশী কর্মজীবনে ৪০টিরও অধিক ক্লুলেস হত্যা মামলা, ১৭টি ডাকাতি মামলাসহ অসংখ্য মামলার রহস্য উদঘাটন করে এ বাহিনীর মান অক্ষুন্ন রাখার পাশাপাশি নিজের মেধা ও দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিয়েছেন।

২০১৮ সালে শেরপুর সার্কেলে যোগদানের মাধ্যমে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার গাজিউর রহমান গত ২৭ মাস যাবৎ বগুড়া জেলার শেরপুর সার্কেলে কর্মরত রয়েছেন। গত ২৭ মাসে ১২বার জেলা পুলিশের শ্রেষ্ঠ সার্কেল অফিসার নির্বাচিত হয়েছেন।

বৈশ্বিক করোনা মহামারীতেও তিনি তার সার্কেল এলাকায় এলাকায় করোনা প্রতিরোধে মাস্ক, লিফলেট বিতরণ, জল কামান দিয়ে জীবাণুনাশক ছিটানো, শেরপুর থানার উদ্যোগে ডোর টু ডোর শপ চালু, বিদেশ ফেরতদের হোম কোয়ারেন্টাইন নিশ্চিতকরণে অগ্রগামী ছিলেন তিনি।

এসব জনসেবামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করতে গিয়ে তিনি নিজেই কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত হন। দীর্ঘ ৩৪ দিন করোনার সাথে যুদ্ধ করে জয়ী হয়েছেন এই যোদ্ধা। আবারো কোভিড-১৯ করোনা ভাইরাসকে উপেক্ষা করে নেমেছেন মানবসেবায়। এছাড়াও তিনি মাদক, জুয়া, সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড তথা অপরাধ দমনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে চলেছেন।

উল্লেখ্য, গাজিউর রহমান ২৯ তম বিসিএস পরীক্ষায় পুলিশ ক্যাডরে উত্তীর্ণের মাধ্যমে ২০১১ সালে এ চাকুরীতে যোগদান করেন। তারপর থেকে দিনাজপুর সদর সার্কেল, ৪র্থ এপিবিএন বগুড়া, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ, বগুড়া পুলিশ হেডকোয়াটার্স এবং সুদানে জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে কর্মরত ছিলেন। সর্বশেষ ২০১৮ সালের ২১শে জুন বগুড়ার শেরপুর সার্কেলে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হিসেবে যোগদান করে সফলতার সাথে দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *