সদাই কেনার টাকায় কেক কিনে বঙ্গবন্ধুকে স্মরণ করল শেরপুরের শিশু-কিশোররা

বগুড়ার সংবাদ

মৌসুমী ইসলাম:

পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থী রুদ্র বসাক, অনিক সরকার, ষষ্ঠ শ্রেণির শিক্ষার্থী ইমরুল কায়েস, প্রিতম রঞ্জন বিশ্বাস, সপ্তম শ্রেণির শিক্ষার্থী অজয় দাস, বাধন তাম্বুলী, তোজ দাস, অভ্র ভট্টাচার্য, শাওন সরকার, অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থী পল্লব ঘোষ, অর্থ সরকার, দশম শ্রেণির শিক্ষর্থী উৎসব দাস, অনিক দত্ত। তারা সবাই বগুড়ার শেরপুর উপজেলার পৌরশহরের গোঁসাইপাড়া এলাকার শিশু কিশোর। ভাষা আন্দোলন, স্বাধীনতা দিবস ও বিজয় দিবস সম্পর্কে তেমন কোন গভীর জ্ঞান রাখেনা এ শিশু কিশোররা। তবে, স্কুলে শিক্ষকদের মুখে বাঙালি জাতির মুক্তির মহানায়ক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের কথা শুনে তার আদর্শকে বুকে ধারণ করে চলেছে তারা।

এরই প্রেক্ষিতে কেউ বাবার থেকে ফুচকা খেতে, কেউবা মায়ের বা মামার থেকে টাকা নিয়েছেন মুড়িমাখা খেতে। কিন্তু, শিশুরা তাদের বাবা-মায়ের কাছ থেকে নেয়া টাকায় ফুচকা বা মুদির দোকান থেকে সদাই না কিনে ১৭ মার্চ বুধবার বিকালে উপজেলার পৌরশহরের গোঁসাইপাড়া শেরপুর থানার পার্শ্ববর্তী খেলার মাঠে হাজির হয়েছে কেক কিনে। কারণ, আজ জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১০১ তম জন্মদিন। এ উপলক্ষে কেক কেটে বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষকী পালন করেছে শিশু কিশোররা।

উলিপুর মাদ্রাসার প্রথম শ্রেণির শিক্ষার্থী সাকিব আল হাসান বলেন, আমরা বঙ্গবন্ধুকে দেখিনি। তার সম্পর্কে শিক্ষকদের কাছে শুনেছি তিনি আমাদের দেশের জন্য অনেক ত্যাগ স্বীকার করেছেন। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান আমাদের দেশ স্বাধীন করেছেন। তাই আমরা খেলার সাথিরা মিলে হাড়ি-চাঁদা তুলে কেক কিনেছি। বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষকী উপলক্ষে কেক কেটে আনন্দ উল্লাস করলাম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *